৩.৩ শতাংশ কমেছে ইস্পাতের বৈশ্বিক উৎপাদন

৩.৩ শতাংশ কমেছে ইস্পাতের বৈশ্বিক উৎপাদন

বিশ্ব অর্থনীতিতে চলমান অস্থিরতায় বিপাকে বৈশ্বিক ইস্পাত খাত। কয়েক মাসের ধারাবাহিকতায় জানুয়ারিতেও ধাতুটির উৎপাদন কমেছে। এ সময় মধ্যপ্রাচ্য ছাড়া বিশ্বের অন্য সব অঞ্চলেই উৎপাদনের চিত্র ছিল আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় নিম্নমুখী। সম্প্রতি ওয়ার্ল্ড স্টিল অ্যাসোসিয়েশনের মাসভিত্তিক প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে।

এই প্রতিবেদনে বলা হয়, জানুয়ারিতে বৈশ্বিক ইস্পাত উৎপাদন গত বছরের একই সময়ের তুলনায় ৩.৩ শতাংশ কমেছে। উৎপাদনের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ১৪ কোটি ৫৩ লাখ টনে। ২০২২ সালে বিশ্বজুড়ে উৎপাদন হয়েছিল ১৮৩ কোটি ১৩ লাখ টন, যা আগের বছরের তুলনায় ৪.৩ শতাংশ কম।

বর্তমানে বিশ্বের শীর্ষ ইস্পাত উৎপাদক দেশ চীন। গত বছরের ৮ মাসই দেশটিতে ইস্পাত উৎপাদন ছিল নিম্নমুখী। ওই বছর জ্বালানি সংকট মোকাবেলায় দেশটি ইস্পাত উৎপাদন সীমিত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল। এছাড়া কার্বন নিঃসরণ কমিয়ে আনার লক্ষ্য বাস্তবায়নের পদক্ষেপও উৎপাদন কমার পেছনে দায়ী বলে জানিয়েছেন খাতসংশ্লিষ্টরা। গত বছর দেশটিতে মোট উৎপাদন ২০২১ সালের তুলনায় ২.৩ শতাংশ কমে গিয়েছিল। তবে এ বছরের প্রথম মাসে চীনে ইস্পাত উৎপাদন ২.৩ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৭ কোটি ৯৫ লাখ টনে।

Leave a Reply