ফেব্রুয়ারিতে রপ্তানিতে প্রবৃদ্ধি ৭ দশমিক ৮১ শতাংশ

ফেব্রুয়ারিতে রপ্তানিতে প্রবৃদ্ধি ৭ দশমিক ৮১ শতাংশ

ডলার সংকটে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভের চাপে থাকার মধ্যে ডিসেম্বর ও জানুয়ারিতে রপ্তানি আয় পাঁচ বিলিয়ন ডলার ছাড়িয়ে গেলেও ফেব্রুয়ারিতে এ মাইলফলক ছুঁতে পারেনি। তবে আগের বছরের একই সময়ের চেয়ে প্রবৃদ্ধি হয়েছে ৭ দশমিক ৮১ শতাংশ। গতকাল বৃহস্পতিবার রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরো (ইপিবি) রপ্তানি আয়ের সবশেষ তথ্য প্রকাশ করেছে।

সদ্য শেষ হওয়া ফেব্রুয়ারিতে রপ্তানি আয় এসেছে ৪৬৩ কোটি ডলারের। ২০২১-২২ অর্থবছরের ফেব্রুয়ারিতে যা ছিল ৪২৯ কোটি ৪৫ লাখ ডলার। আগের বছরের একই সময়ের চেয়ে প্রবৃদ্ধি হলেও গত মাসে লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে পিছিয়ে রয়েছে আয়। চলতি ২০২২-২৩ অর্থবছরের ফেব্রুয়ারিতে ৪৮০ কোটি ৭০ লাখ ডলারের পণ্য রপ্তানির লক্ষ্য ঠিক করেছিল ইপিবি। এ হিসাবে লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে আয় কম এসেছে ৩ দশমিক ৬৮ শতাংশ।

ইউক্রেন-রাশিয়া যুদ্ধ পরিস্থিতির কারণে পশ্চিমা বিশ্বে পোশাকের চাহিদা কমে গেছে এবং দেশে পোশাক তৈরির ক্রয়াদেশ কমে গেছে বলে রপ্তানিকারকরা বারবার বলে এলেও রপ্তানির ইতিবাচক ধারা বজায় থাকতে দেখা গেছে।

দেশে নতুন করে দামি পোশাক পণ্য তৈরির সক্ষমতা অর্জন হওয়া এবং কাঁচামালের মূল্য বেড়ে যাওয়ার কারণে পোশাকের দাম বাড়ায় ডলারের হিসাবে পোশাক রপ্তানি প্রবৃদ্ধির পথে রয়েছে বলে রপ্তানিকারকদের ব্যাখ্যা।

এদিকে গত ফেব্রুয়ারিতে এর আগের মাস জানুয়ারির চেয়ে ৫০ কোটি ৬৩ লাখ ডলার কম রপ্তানি আয় দেশে এসেছে। জানুয়ারিতে রপ্তানির পরিমাণ ছিল ৫১৩ কোটি ৬২ লাখ ডলার। পঞ্জিকার হিসাবে গত মাস ছিল ২৮ দিনের। এ কারণে আয় এমনিতেই কম হবে। তবে গড় হিসাব ধরলে জানুয়ারিতে দৈনিক আয় ছিল ১৬ কোটি ৫৬ লাখ ডলারের মতো হয়েছিল আর ফেব্রুয়ারিতে তা ছিল ১৬ দশমিক ৫৩ কোটি ডলার। এ হিসাবে সবশেষ দুই মাসের রপ্তানি আয় দেশে আসার গতি প্রায় কাছাকাছিই ছিল।

অন্যদিকে চলতি ২০২২-২৩ অর্থবছরের জুলাই থেকে ফেব্রুয়ারি প্রথম আট মাসে মোট তিন হাজার ৭০৭ কোটি ডলারের পণ্য রপ্তানি হয়েছে, যা আগের অর্থবছরের একই সময়ের তুলনায় ৯ দশমিক ৫৬ শতাংশ বেশি। আগের আট মাসে রপ্তানি থেকে এসেছিল তিন হাজার ৩৮৪ কোটি ৩৪ লাখ ডলার।

বরাবরের মতো রপ্তানি আয়ে নেতৃত্ব দিচ্ছে তৈরি পোশাক খাত। প্রধান এ খাতের নিট ও ওভেন পণ্য মিলিয়ে ১৪ শতাংশ প্রবৃদ্ধি রয়েছে। আলোচিত আট মাসে মোট তিন হাজার ১৩৬ কোটি ডলারের পোশাক পণ্য রপ্তানি হয়েছে।

Leave a Reply